প্রাথমিকের শিক্ষার্থীদের উপবৃত্তির টাকা যাবে নগদে

প্রাথমিকের শিক্ষার্থীদের উপবৃত্তির টাকা যাবে নগদে

শিক্ষার্থীদের ডিজিটাল দক্ষতা বাড়াতে এবং উপবৃত্তির টাকা উত্তোলনে ভোগান্তি দূর করতে প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রায় দেড় কোটি শিক্ষার্থীর ডাক বিভাগের ডিজিটাল লেনদেন সেবা নগদে উপবৃত্তির টাকা পাবেন।

আজ রোববার (১৩ ডিসেম্বর) সচিবালয়ে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে মোবাইল ফিন্যান্সিয়াল সার্ভিসের মাধ্যমে উপবৃত্তি বিতরণের লক্ষ্যে প্রাথমিক অধিদপ্তর ও নগদের মধ্যে চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়েছে।

নগদে উপবৃত্তির টাকা বিতরণের বিষয়ে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী মো. জাকির হোসেনের বলেন, উপবৃত্তি দেয়ায় প্রাথমিক স্তরে ঝরে পড়া শিক্ষার্থীর সংখ্যা কমে গেছে। উপবৃত্তির টাকা সমৃদ্ধ জাতি গঠনের জন্য একটি যুগান্তকারী উদ্যোগ হবে।

প্রাথমিক ও গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী বলেন, শিক্ষার্থীদের ডিজিটাল দক্ষতাসম্পন্ন মানবসম্পদ হিসেবে তৈরি করতে হলে প্রাথমিক শিক্ষা থেকে তাদের তৈরি করতে হবে। সোনার বাংলা প্রতিষ্ঠার লালিত স্বপ্ন বাস্তবায়নে যুদ্ধের ধ্বংসস্তূপের ওপর দাঁড়িয়েও বঙ্গবন্ধু প্রাথমিক শিক্ষা জাতীয়করণ করেছিলেন। প্রযুক্তি দুনিয়ার সঙ্গে প্রতিযোগিতায় টিকে থাকার চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায় প্রাথমিক স্তর থেকে শিক্ষার ডিজিটাল রূপান্তর অপরিহার্য হয়ে পড়েছে।

মন্ত্রী আরও বলেন, উপবৃত্তি প্রাথমিক শিক্ষা বিস্তারে অভাবনীয় ভূমিকা পালন করছে। পাশাপাশি বৃত্তির এই টাকা মায়েদের হাতে পৌঁছে দিয়ে নারীর ক্ষমতায়নে অবদান রাখছে।

চুক্তি স্বক্ষরকালে ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার ১৯৯৯ সাল থেকে প্রাথমিক শিক্ষাকে ডিজিটালে রূপান্তরে তার দীর্ঘ অভিজ্ঞতা বর্ণনা করে বলেন, প্রাথমিকে তথ্যপ্রযুক্তি জ্ঞানভিত্তিক ডিজিটাল সাম্য সমাজ প্রতিষ্ঠার হাতিয়ার হিসেবে কাজ করবে।

প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সঙ্গে ডাক বিভাগের নগদ চুক্তি স্বাক্ষর করেন প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তরের মহাপরিচালক এ এম মনসুরুল আলম এবং ডাক বিভাগের মহাপরিচালক মো. সিরাজ উদ্দিন। এ সময় গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সচিব গোলাম মো. হাসিবুল আলমসহ দুই মন্ত্রণালয়ের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Design & Develop BY Our BD It